বিদ্যুৎ বিচ্ছিন্ন হতে পারে ইমরান খানের দফতর

Print Friendly, PDF & Email

নিউজ ডেস্ক : বেশ বিপাকে পড়েছে পাকিস্তান সরকার। প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানের দফতর এবার বিদ্যুৎহীন হয়ে পড়ার আশঙ্কা দেখা দিয়েছে। ২৮ আগস্ট ইসলামাবাদ ইলেকট্রিক সাপ্লাই কোম্পানি একটি নোটিশ জারি করেছে।

ওই নোটিশে বলা হয়েছে, প্রধানমন্ত্রীর দফতরের ৪১ লাখ টাকারও বেশি বিদ্যুৎ বিল বকেয়া রয়েছে। বিদ্যুৎ সরবরাহ সংস্থার দাবি, একাধিকবার নোটিশ পাঠানো হলেও প্রধানমন্ত্রীর দফতর থেকে বিদ্যুতের বকেয়া টাকা পরিশোধ করা হয়নি।

বিদ্যুৎ দফতরের এক কর্মকর্তা বলেছেন, আবারও নোটিশ পাঠানো হয়েছে। এবার বকেয়া না মেটানো হলে বিদ্যুৎ সংযোগ বিচ্ছিন্ন করে দেয়া হবে।

এমনিতেই পাকিস্তানের অর্থনীতির বেহাল দশা। বাজেটে ঘাটতি কমাতে কিছুদিন আগেই পাক সরকারের তরফ থেকে এক বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছে যে, এখন থেকে কোনো সরকারি বৈঠকে চা-বিস্কুট দেওয়া হবে না। তাছাড়া নতুন গাড়ি কিংবা বিলাসবহুল পণ্য ব্যবহারের ক্ষেত্রেও নিষেধাজ্ঞা জারি করা হয়েছে।

সরকারি প্রতিষ্ঠানগুলোতে এবার থেকে শুধু একটিমাত্র সংবাদপত্রই রাখা হবে। টেলিফোন, বিদ্যুৎ, গ্যাসের ব্যবহার কমানোরও নির্দেশ দেওয়া হয়েছে সরকারি কর্মকর্তা ও মন্ত্রীদের। এবার প্রধানমন্ত্রীর দফতরেই এলো নোটিশ। হয় বকেয়া বিদ্যুৎ বিল মেটাতে হবে নয়ত বিদ্যুৎ সংযোগ বিচ্ছিন্ন করা হবে।