ছাড়পত্র পেলেন অ্যানি

Print Friendly, PDF & Email

নিউজ ডেস্ক : নেপাল ট্র্যাজেডিতে আহত হয়ে ঢাকা মেডিকেল কলেজ (ঢামেক) ও হাসপাতালে চিকিৎসাধীন আলমুন নাহার অ্যানি হাসপাতাল ছেড়েছেন।

মঙ্গলবার সকাল সাড়ে ১০টার দিকে হাসপাতাল থেকে ছাড়পত্র পান তিনি।

ঢাকা মেডিকেল কলেজ (ঢামেক) ও হাসপাতালের বার্ন অ্যান্ড প্লাস্টিক সার্জারি ইউনিটের সমন্বয়ক ডা. সামন্ত লাল সেন এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

নেপালের ত্রিভুবন বিমনাবন্দরে ইউএস-বাংলার উড়োজাহাজ দুর্ঘটনায় আহতদের মধ্যে অ্যানিই সর্বশেষ ব্যক্তি হিসেবে বাড়ি ফিরছেন।

অ্যানির পারিবারিক সূত্রে জানা গেছে, তাকে আজ তার শ্বশুরবাড়ি গাজীপুরে নিয়ে যাওয়া হবে। এরপর অ্যানিকে তার বাবার বাড়ি ময়মনসিংহে নিয়ে যাওয়া হবে।

উল্লেখ্য, গত ১২ মার্চ নেপালের ত্রিভুবন বিমানবন্দরে ইউএস-বাংলার একটি উড়োজাহাজ বিধ্বস্ত হয়ে ৫১ জন নিহত হন। নিহতদের মধ্যে ২৬ জন বাংলাদেশি। ওই দুর্ঘটনায় অ্যানি তার স্বামী ফারুক আহমেদ প্রিয়ক ও কন্যা তামাররা প্রিয়ন্ময়ীকে হারান। ভাগ্যক্রমে তিনি বেঁচে যান। এরপর তাকে নেপাল থেকে বাংলাদেশে এনে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসা দেওয়া হয়।

২০১২ সালে প্রিয়ক ও অ্যানির বিয়ে হয়। ২০১৫ সালের ১৪ সেপ্টেম্বর তাদের ঘরে আসে একটি ফুটফুটে কন্যা সন্তান। নাম রাখা হয় তামারা প্রিয়ন্ময়ী। ভয়ঙ্কর সেই বিমান দুর্ঘটনায় প্রিয়ন্ময়ী ও প্রিয়কের নিহত হওয়ার খবর শুনার পর থেকে মানসিকভাবে বিপর্যস্ত ছিলেন অ্যানি।

Be the first to comment on "ছাড়পত্র পেলেন অ্যানি"

Leave a comment

Your email address will not be published.




three + 16 =