রংপুরে কিশোরী ধর্ষণ মামলায় একজনের যাবজ্জীবন

Print Friendly, PDF & Email

জেলা প্রতিনিধি : রংপুরের তারাগঞ্জে এক কিশোরীকে ধর্ষণের মামলায় সবুজ ওরফে মিঠুন নামে প্রধান আসামীকে যাবজ্জীবন সশ্রম কারাদণ্ড ও ৪ জন আসামীকে খালাস দিয়েছে আদালত।

বৃহস্পতিবার (২৪ নভেম্বর) সকালে দুপুরে নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনাল-৩ এর বিচারক এম আলী আহমেদ এ রায় দেন। একই সঙ্গে আসামীকে ৫ হাজার টাকা অর্থদণ্ড অনাদায়ে আরও একমাসের বিনাশ্রম কারাদণ্ড দিয়েছে বিচারিক আদালত। রায় ঘোষণার সময় আদালতে ৫ জন আসামীই উপস্থিত ছিলেন।

রাষ্ট্রপক্ষের আইনজীবী স্পেশাল পিপি তাজিবর রহমান লাইজু রায়ের বিষয়টি নিশ্চিত করেন। তিনি বলেন, মামলায় প্রধান আসামির বিরুদ্ধে রাষ্ট্রপক্ষ অভিযোগ প্রমাণ করেছে। বাকি চার সহযোগীর বিরুদ্ধে অভিযোগ প্রমাণিত না হওয়ায় তাদের খালাস দেয়া হয়েছে।

আদালত সূত্রে জানা যায়, পূর্ব পরিচয় থেকে ২০২০ সালের ২৭ ডিসেম্বর আসামি সবুজ মোবাইল ফোনে ভিকটিমকে তার বাড়ির পিছনে ডেকে নিয়ে যায়। পরে আতিক নামে একজনের সহযোগিতায় তাকে জোর করে পাশের পুকুরপাড়ে নিয়ে ধর্ষণ করে এবং এক পর্যায়ে রক্তপাত শুরু হলে সেখান থেকে পালিয়ে যায়।

পরে ১১ডিসেম্বর মেয়ের বাবা বাদী হয়ে তারাগঞ্জ থানায় পাঁচজনকে আসামী করে ধর্ষণ মামলা করেন। চলতি বছরে তদন্ত শেষ করে চার্জশিট দাখিল করেন তদন্ত কর্মকর্তা এসআই মমতাজের রহমান মাসুম। পরে ৮ আগস্ট ট্রাইবুনাল চার্জশিট গ্রহণ করলে বিচারকাজ শুরু হয়।