ভিডিও টেকনোলজি নিয়ে বিরক্ত রিয়াল

Print Friendly, PDF & Email

নিউজ ডেস্ক : ক্লাব বিশ্বকাপ ফুটবলের সেমিফাইনালে আল জাজিরার বিপক্ষে প্রথমার্ধেই গোল করেছিলেন রিয়াল মাদ্রিদের মিডফিল্ডার কাসেমিরো। তবে ওই গোল নিয়ে বিতর্ক তৈরি হয়। ফলে গোললাইন টেকনোলজি ভিডিও অ্যাসিস্ট্যান্ট রেফারির (ভিএআর) দ্বারস্থ হতে হয়। ভিএআরের সিদ্ধান্তে শেষ পর্যন্ত গোলটি বাতিলই ঘোষণা করে দেন রেফারি। তার আগে করিম বেনজেমার একটি হেড বারের ভেতর থেকে ফিরে এলেও রেফারি সান্দ্রো রিচ্চি গোলের সিদ্ধান্ত দেননি।

শুরুতে কাসেমিরোর গোলও বাতিল করে দেন রেফারি। এ নিয়ে তর্ক-বিতর্ক চলতে থাকে। শেষ পর্যন্ত গোলের সিদ্ধান্ত জানার জন্য ভিএআরের দ্বারস্থ হওয়ার পরও গোল পেলো না রিয়াল মাদ্রিদ। বল পোস্টের ভেতর থেকে ফিরে আসার পরও গোল দিলেন না রেফারি।

ভিএআরের এমন গলদের ওপর পুরো সিস্টেমটার ওপরই বিরক্তি ধরে গেছে রিয়াল মাদ্রিদের। ভিডিও টেকনোলজির মাধ্যমে গোলের সিদ্ধান্ত নেয়ার বিষয়টিকে এখন আর মেনে নিতে পারছে না বিশ্বের অন্যতম সেরা এই ক্লাবটি। রিয়ালের অন্যতম সেরা ফুটবলার, দীর্ঘদিন ইনজুরিতে থাকার পর আল জাজিরার বিপক্ষে ফিরেই গোল করে রিয়ালকে জিতিয়েছেন গ্যারেথ বেল। তিনি বলেন, ‘ভিএআর ছাড়াই ফুটবল সুন্দর।’

ভিডিও টেনকোলজির বিপক্ষেই বলতে গেলে পুরোপুরি অবস্থান নিয়ে ফেলেছেন এখন গ্যারেথ বেল। তিনি সরাসরি বলেন, ‘আমি এই সিস্টেম পছন্দ করি না। আমি মনে করি, ফুটবল ভিএআর ছাড়াই সুন্দর।’

ভিডিও টেকনোলজির বিপক্ষে অবস্থান নিয়েছেন যার গোল বাতিল করা হয়েছে, সেই কাসেমিরোও। এর বিপক্ষে কথা বলেছেন রিয়ালের আরেক মিডফিল্ডার লুকা মডরিচ। তিনিও জানিয়েছেন ভিএআর সিস্টেমকে পছন্দ করেন না। তিনি বলেন, ‘ভিএআর সিস্টেম নিয়ে এখনও অনেক সন্দেহ-সংশয় রয়েছে। এ কারণেই আমি একে পছন্দ করি না।’

রিয়ালের কোচ জিদানও বলেছেন, ‘ভিএআর সিস্টেম নিয়ে মোটেও আমি খুশি নই। চার মিনিটের ওই ঘটনা মোটেও ভালোভাবে বিশ্লেষণ করা হয়নি।

Be the first to comment on "ভিডিও টেকনোলজি নিয়ে বিরক্ত রিয়াল"

Leave a comment

Your email address will not be published.




fourteen + four =