সিনহাকে পদত্যাগে বাধ্য করা হয়েছে : খালেদা

Print Friendly, PDF & Email

নিউজ ডেস্ক : ‘প্রধান বিচারপতি সুরেন্দ্র কুমার (এসকে) সিনহাকে ভয়ভীতি দেখিয়ে পদত্যাগ করতে বাধ্য করা হয়েছে’ বলে অভিযোগ করেছেন বিএনপির চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়া। তিনি বলেন, ‘ক্ষমতাসীনদের পছন্দ না হওয়ায় তাকে (এসকে সিনহা) এভাবে চলে যেতে হয়েছে।’

বৃহস্পতিবার (১৬ নভেম্বর) ঢাকার বকশীবাজারের আলিয়া মাদরাসা মাঠে স্থাপিত অস্থায়ী আদালতে জিয়া অরফানেজ ট্রাস্ট দুর্নীতি মামলায় আত্মপক্ষ সমর্থনের অসমাপ্ত বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

খালেদা জিয়া আদালতে প্রশ্ন রেখে বলেন, যেখানে প্রধান বিচারপতিকে এভাবে চলে যেতে হয়েছে সেখানে অন্য বিচারপতিদের ন্যায় বিচারের সুযোগ আছে কি?

তিনি বলেন, সংবিধানের ষোড়শ সংশোধনী বাতিল করে রায় দেয়ায় প্রধান বিচারপতির বিরুদ্ধে অপতৎপরতা শুরু হয়। ক্ষমতাসীন মহল তাদের ক্রোধ গোপন রাখতে পারেনি। তারা (ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগ) প্রকাশে প্রধান বিচারপতিকে হুমকি দিয়ে আক্রমণাত্মক বক্তব্য দেয়া শুরু করে।

বিএনপি চেয়ারপারসন অভিযোগ করে বলেন, সরকারের বিরুদ্ধে রায় দেয়ায় তাকে (এসকে সিনহা) পদত্যাগ করতে এবং বিদেশে চলে যেতে বলা হয়। প্রধান বিচারপতি আত্মপক্ষ সমর্থনে বিভিন্ন সময় ব্যাখ্যা দিয়েও ক্ষমতসীনদের ক্রোধ থামাতে পারেননি।

পরে খালেদা জিয়ার বক্তব্য শেষ না হওয়ায় আত্মপক্ষ সমর্থনের জন্য আগামী ২৩ নভেস্বর (বৃহস্পতিবার) পুনরায় দিন ধার্য করেন বিচারক। অপরদিকে জিয়া চ্যারিটেবল ট্রাস্ট দুর্নীতি মামলার সাক্ষীদের পুনরায় জেরা শেষ হওয়ার পর খালেদাসহ অপর আসামিদের আত্মপক্ষ সমর্থনের জন্য একইদিন ধার্য করা হয়েছে।

উল্লেখ্য, জিয়া অরফানেজ ট্রাস্ট দুর্নীতি মামলায় ঢাকার বকশীবাজারের আলিয়া মাদরাসা মাঠে স্থাপিত অস্থায়ী আদালতে আত্মপক্ষ সমর্থনের অসমাপ্ত বক্তব্য দিচ্ছেন খালেদা জিয়া। আজ বৃহস্পতিবার পঞ্চম দিনের মতো আত্মপক্ষ সমর্থনের বক্তব্য দিলেন খালেদা জিয়া।

Be the first to comment on "সিনহাকে পদত্যাগে বাধ্য করা হয়েছে : খালেদা"

Leave a comment

Your email address will not be published.




sixteen + 6 =