পুলিশের ধাওয়া খেয়ে বাইকে আগুন

Print Friendly, PDF & Email

নিউজ ডেস্ক : রাজধানীর আজিমপুরে আওয়ামী লীগের দু’পক্ষের কর্মসূচি ঘিরে সকাল থেকেই ওই এলাকায় উত্তেজনা বিরাজ করছে। কর্মসূচি ঠেকাতে কোনো একটি পক্ষ আজিমপুরে পার্ল হারবাল কমিউনিটি সেন্টার (ভিকারুননিসা স্কুলের পাশে) শ্মশানের রাস্তায় ময়লা ফেলে রাখে।

বৃহস্পতিবার বেলা সাড়ে ১১টায় দু’পক্ষে ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়াও শুরু হয়।

জানা গেছে, ঢাকা মহানগর দক্ষিণ আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক শাহে আলম মুরাদ ও ২৬ নম্বর ওয়ার্ড কাউন্সিলর মানিকের পক্ষের লোকজন পরস্পরবিরোধী স্লোগান দিচ্ছিলেন।

এ সময় কোনো একটি পক্ষ অপর পক্ষকে লক্ষ করে ইট ছুড়লে অপর পক্ষও জবাবে ইট-পাটকেল মারতে শুরু করে। ফলে দু’পক্ষের মধ্যে সংঘর্ষ শুরু হয়ে যায়।

এ সময় পুলিশ টিয়ার শেল ও ফাঁকা গুলি ছুড়ে পরিস্থিতি নিজেদের নিয়ন্ত্রণে আনার চেষ্টা শুরু করে।

পুলিশের ভূমিকায় সংঘর্ষে লিপ্তরা ছত্রভঙ্গ হয়ে যান। ঘটনাস্থল থেকে পালিয়ে যাওয়ার সময় মানিকের সমর্থকরা আজিমপুর মোড় এবং পলাশী থেকে ইডেন কলেজ যাওয়ার সড়কে কমপক্ষে তিনটি মোটরসাইকেলে আগুন দেয়।

লালবাগ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মনিরুজ্জামান বলেন, আওয়ামী লীগের দু’পক্ষে সংঘর্ষ হয়েছে। পুলিশ পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে ব্যবস্থা নিয়েছে।

Be the first to comment on "পুলিশের ধাওয়া খেয়ে বাইকে আগুন"

Leave a comment

Your email address will not be published.




ten + 14 =