আত্মসমর্পণ করে জামিন পেলেন ইমরান

Print Friendly, PDF & Email

নিউজ ডেস্ক : ভাস্কর্য অপসারণের প্রতিবাদী মিছিল থেকে প্রধানমন্ত্রীকে নিয়ে ‘কটূক্তির’ অভিযোগে দায়ের করা মানহানির মামলায় গ্রেপ্তারি পরোয়ানা জারির পর আদালতে হাজির হয়ে জামিন পেয়েছেন গণজাগরণ মঞ্চের মুখপাত্র ইমরান এইচ সরকার।

আজ বুধবার সকালে ঢাকার প্রথম অতিরিক্ত মুখ্য মহানগর হাকিম শেখ ছামিদুল ইসলামের আদালতে আত্মসমর্পণ করে ইমরান জামিনের আবেদন করলে বিচারক ১০ হাজার টাকা মুচলেকায়  তা মঞ্জুর করেন।

আসামিপক্ষে জামিন শুনানি করেন আইনজীবী প্রকাশ বিশ্বাস ও জীবনানন্দ জয়ন্ত। অন্যদিকে বাদীপক্ষে ছিলেন নোমান হোসাইন তালুকদার।

অভিযোগ গঠনের শুনানির ধার্য দিনে আদালতে উপস্থিত না থাকায় গত ২৬ অক্টোবর ইমরানের বিরুদ্ধে পরোয়ানা জারির এই আদেশ দেন ঢাকার প্রথম অতিরিক্ত মুখ্য মহানগর হাকিম শেখ ছামিদুল ইসলাম।

মামলার অপর আসামি সনাতন উল্লাস সেদিন আদালতে উপস্থিত হয়ে শুনানি পেছানোর আবেদন করলে বিচারক তা মঞ্জুর করে ৪ জানুয়ারি অভিযোগ গঠনের শুনানির নতুন তারিখ ঠিক করে দেন।

অভিযোগ গঠনের শুনানিতে হাজির না হওয়ায় একই আদালত গত ২০ সেপ্টেম্বর ইমরান ও সনাতনের বিরুদ্ধে গ্রেপ্তারি পরোয়ানা জারি করেছিল। পরদিন আদালতে আত্মসমর্পণ করে তারা জামিন পান।

ছাত্রলীগের কেন্দ্রীয় শিক্ষা ও পাঠচক্র বিষয়ক সম্পাদক গোলাম রব্বানীর দায়ের করা এ মামলার আর্জিতে বলা হয়, গত ২৮ মে ইমরানের নেতৃত্বে রাজধানীতে মশাল মিছিল থেকে প্রধানমন্ত্রীকে নিয়ে ‘কটূক্তি করা হয়’, তাতে বাংলাদেশের নাগরিক হিসেবে তিনি ক্ষুব্ধ, অপমানিত হয়েছেন।

গণজাগরণ মঞ্চের ওই মিছিল থেকে শেখ হাসিনার বিরুদ্ধে স্লোগান ওঠার পর ইমরানকে পেটানোরও হুমকি দিয়েছিলেন রব্বানী। পরে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসে কয়েকজন ছাত্রলীগ নেতার উদ্যোগে একটি মিছিল পরবর্তী সমাবেশ থেকে ইমরান এইচ সরকারকে শাহবাগে অবাঞ্ছিত ঘোষণা করা হয়।

 

Be the first to comment on "আত্মসমর্পণ করে জামিন পেলেন ইমরান"

Leave a comment

Your email address will not be published.




9 − eight =