কাশ্মীরে ‘বৃহত্তর স্বায়ত্তশাসন’ চান চিদাম্বরম

Print Friendly, PDF & Email

নিউজ ডেস্ক : ভারতের জম্মু-কাশ্মীর রাজ্যে বৃহৎ পরিসরে স্বায়ত্তশাসনের দাবি জানিয়েছেন বিরোধীদল কংগ্রেসের জ্যেষ্ঠ নেতা পলানিয়াপ্পন চিদাম্বরম।

স্থানীয় সময় শনিবার দেশটির গুজরাট রাজ্যের রাজকোটে সাংবাদিকদের কাছে এমন অবস্থানের কথা জানান কংগ্রেসের এই নেতা।

‘কাশ্মীর উপত্যকায় দাবি হলো, পত্র ও ৩৭০ অনুচ্ছেদকে সম্মান জানানো। এর মানে দাঁড়ায়, তারা (কাশ্মীরবাসী) বৃহত্তর স্বায়ত্তশাসন চায়। জম্মু-কাশ্মীরে  মিথস্ক্রিয়া আমাকে এই সিদ্ধান্তে উপনীত করেছে যে তারা যখন আজাদির (স্বাধীনতা) কথা বলে, তাদের বেশির ভাগ, আমি সবার কথা বলছি না…তাদের বিপুলসংখ্যক লোক স্বায়ত্তশাসন চায়’, সাংবাদিকদের বলেন চিদাম্বরম।

কাশ্মীরকে এখনো বৃহত্তর স্বায়ত্তশাসন দেওয়া উচিত কি না—সেই প্রশ্নের জবাবে চিদাম্বরম বলেন, ‘হ্যাঁ, আমি মনে করি।’

এনডিটিভির খবরে বলা হয়, চিদাম্বরমের এই বক্তব্যে চটেছেন ক্ষমতাসীন দল ভারতীয় জনতা পার্টির (বিজেপি) নেতারা। দলটির নেতা ও কেন্দ্রীয় মন্ত্রী স্মৃতি ইরানি এ বক্তব্যকে ‘বেদনাদায়ক ও লজ্জাজনক’ বলে আখ্যায়িত করেছেন।

এর আগে ২০১৬ সালের জুলাইয়ে জম্মু-কাশ্মীরে বৃহত্তর স্বায়ত্তশাসনের কথা বলেছিলেন চিদাম্বরম। সে সময় তিনি বলেছিলেন, ভারতের উচিত ‘বৃহৎ সমঝোতা’র মাধ্যমে কাশ্মীরে বড় আকারে স্বায়ত্তশাসন দেওয়া। তা না হলে দেশটিকে ‘চরম মূল্য’ দিতে হবে বলেও সতর্ক করেছিলেন রাজ্যসভার এই আইনপ্রণেতা।

 

Be the first to comment on "কাশ্মীরে ‘বৃহত্তর স্বায়ত্তশাসন’ চান চিদাম্বরম"

Leave a comment

Your email address will not be published.




10 − six =