মেক্সিকোতে কারাগারে দাঙ্গায় ১৩ জন নিহত

Print Friendly, PDF & Email

নিউজ ডেস্ক : মেক্সিকোর উত্তরাঞ্চলীয় রাজ্য নুয়েভো লিওনের একটি কারাগারে প্রতিদ্বন্দ্বী অপরাধী দলগুলোর মধ্যে দাঙ্গা শুরু হওয়ার পর নিরাপত্তা বাহিনীর হস্তক্ষেপের মধ্যে অন্তত ১৩ জন নিহত হয়েছেন।

দাঙ্গা থামাতে কারাগারটিতে সেনা পাঠানো হয় বলে মঙ্গলবার জানিয়েছেন রাজ্যের নিরাপত্তা কর্মকর্তা আলদো ফাসকি, খবর বার্তা সংস্থা রয়টার্সের।

এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি জানান, মনতেরে শহরের নিকটবর্তী কাদেরেইতা কারাগারে নিরাপত্তা বাহিনী প্রবেশ করে কারারক্ষী ও অন্যান্য কয়েদিদের সুরক্ষা দিতে ‘প্রাণঘাতী’ শক্তি ব্যবহার করেছে।

আহতদের মধ্যে আটজনের অবস্থা সঙ্কটজনক হওয়ায় মৃতের সংখ্যা আরো বাড়তে পারে বলে জানিয়েছেন তিনি।

এবিসি নিউজের প্রতিবেদনে ফাসকির বরাতে বলা হয়েছে, সোমবার রাতে কারাগারটিতে বন্দি ছয়টির মতো অপরাধী দলের লোকদের মধ্যে একটির সদস্যরা প্রতিবাদ করতে শুরু করলে সমস্যার সূত্রপাত হয়। ওই দলের প্রতিবাদ মিলিয়ে যাওয়ার পর মঙ্গলবার ভোরে দলগুলোর মধ্যে লড়াই শুরু হয়ে যায় এবং এক কয়েদি নিহত হওয়ার পর তার লাশ পুড়িয়ে ফেলা হয়।

দাঙ্গাকারীরা কারারক্ষীদের জিম্মি করে রাখে এবং কারাগারের ছাদে নিয়ে গিয়ে তাদের পেটায়।

পুলিশ কারাগারের ভিতরে প্রবেশ করে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে নেওয়ার চেষ্টা করলে প্রায় দেড়শ কয়েদি তাদের ওপর হামলা চালায়।

‘প্রাণঘাতী’ শক্তি ব্যবহারের সিদ্ধান্ত না নিলে আরো অনেকের মৃত্যু হতো বলে দাবি করেছেন ফাসকি।

তবে কতোজন দাঙ্গায় আর কতোজন নিরাপত্তা বাহিনীর গুলিতে মারা গেছেন তা তাৎক্ষণিকভাবে পরিষ্কার হওয়া যায়নি বলে জানিয়েছে রয়টার্স।

Be the first to comment on "মেক্সিকোতে কারাগারে দাঙ্গায় ১৩ জন নিহত"

Leave a comment

Your email address will not be published.




one × one =