সুবহান-আজহার-কায়সারের আপিল শুনানি ২১ নভেম্বর

Print Friendly, PDF & Email

নিউজ ডেস্ক : মানবতাবিরোধী অপরাধের দায়ে মৃত্যুদণ্ডপ্রাপ্ত জামায়াতের সিনিয়র নায়েবে আমির মাওলানা আব্দুস সুবহান, সহকারী সেক্রেটারি জেনারেল এটিএম আজহারুল ইসলাম এবং জাতীয় পার্টির (জাপা) নেতা সাবেক কৃষি প্রতিমন্ত্রী সৈয়দ মোহাম্মদ কায়সারের আপিল শুনানির জন্য ২১ নভেম্বর দিন ধার্য করেছেন আপিল বিভাগ।

আজ মঙ্গলবার মামলার শুনানির কথা থাকলেও আসামিপক্ষের আইনজীবী ও রাষ্ট্রপক্ষের আইনজীবীর সময় আবেদনের প্রেক্ষিতে নতুন দিন ধার্য করা হয়। আসামিপক্ষের আইনজীবী খন্দকার মাহবুব হোসেন ৮ সপ্তাহের সময় আবেদন করেন এবং রাষ্ট্রপক্ষ ৬ সপ্তাহ সময় চেয়ে আবেদন করেন। পরে আদালত উভয় পক্ষের আবেদন মঞ্জুর করে নতুন দিন ধার্য করেন।

মঙ্গলবার ভারপ্রাপ্ত প্রধান বিচারপতি মো. আবদুল ওয়াহহাব মিঞার নেতৃত্বে পাঁচ সদস্যের আপিল বিভাগের বেঞ্চ এই আদেশ দেন। বেঞ্চের অপর সদস্যরা হলেন বিচারাপতি সৈয়দ মহমুদ হোসেন, বিচারপতি ইমান আলী, বিচারপতি হাসান ফয়েজ সিদ্দিকী ও বিচারপতি মির্জা হাসেইন হায়দার।

শুনানিতে আদালতে আজ সৈয়দ কায়সারের পক্ষে উপস্থিত ছিলেন আইনজীবী এসএম শাজাহান। এছাড়া সুবহান ও আজাহারের পক্ষে ছিলেন অ্যাডভোকেট জয়নুল আবেদীন তুহিন ও শিশির মুহাম্মদ মনির। অন্যদিকে রাষ্ট্রপক্ষে ছিলেন অ্যাটর্নি জেনারেল মাহবুবে আলম।

পরে আসামিপক্ষের আইনজীবী শিশির মুহাম্মদ মনির সাংবাদিকদের জানান, তাদের মামলার সিনিয়র আইনজীবী অ্যাডভোকেট খন্দকার মাহবুব হোসেন দেশের বাইরে থাকা এবং এ মামলার প্রস্তুতির জন্য সময় চেয়ে আবেদন করি। আদালত সেটি আমলে নিয়ে ছয় সপ্তাহ সময় মঞ্জুর করেন।

এর আগে গত ১৩ আগস্টের আপিল বিভাগের কার্য তালিকায় ওঠে আজহার এবং সৈয়দ কায়সারের আপিল মামলা। তিন দিন পর ওঠে সুবহানের আপিল মামলা। পরে আদালত এ তিনটি মামলার শুনানি আপিল শুনানির জন্য পৃথক পৃথক তারিখ ধার্য করেন। কিন্তু গতকাল আপিল বিভাগের কার্যতালিকায় তিনটি মামলাই পর্যায়ক্রমে এক সঙ্গে শুনানির জন্য ছিল। এর আগে দীর্ঘ এক বছরেরও বেশি সময় পর শুনানির জন্য আপিল বিভাগের কার্যতালিকায় আসে এই আসামিদের মামলা তিনটি।

মানবতাবিরোধী অপরাধের দায়ে ২০১৫ সালের ১৮ ফেব্রুয়ারি আব্দুস সুবহানকে মৃত্যুদণ্ডাদেশ দেন আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনাল। ওই বছরের ১৮ মার্চ আব্দুস সুবহান খালাস চেয়ে আপিল আবেদন করেন। এর আগে ২০১৫ সালের ২৮ জানুয়ারি জামায়াতের সহকারী সেক্রেটারি জেনারেল এটিএম আজহারুল ইসলাম ফাঁসির দণ্ড থেকে খালাস চেয়ে সুপ্রিম কোর্টে আপিল দায়ের করেন।

অপরদিকে মানবতাবিরোধী অপরাধের দায়ে ফাঁসির দণ্ডাপ্রাপ্ত জাতীয় পার্টির নেতা ও এরশাদ আমলের কৃষি প্রতিমন্ত্রী সৈয়দ মোহাম্মদ কায়সার ২০১৫ সালের ১৯ জানুয়ারি বেকসুর খালাসের আরজি জানিয়ে আপিল আবেদন করেন।

Be the first to comment on "সুবহান-আজহার-কায়সারের আপিল শুনানি ২১ নভেম্বর"

Leave a comment

Your email address will not be published.




14 − 7 =